| |

সর্বশেষঃ

ত্রিশালে নজরুল জন্মবার্ষিকীর দ্বিতীয়দিনে সমাজকল্যান প্রতিমন্ত্রী

নজরুল তার কবিতার মাধ্যমে বাঙ্গালী জাতিকে মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহনে ব্যাপক ভাবে উদ্বুদ্ধ করেছিলেন

আপডেটঃ ১১:৫৮ অপরাহ্ণ | মে ২৬, ২০১৯

স্টাফ রিপোর্টার, ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম : সমাজকল্যান প্রতিমন্ত্রী শরীফ আহমেদ এমপি বলেছেন, নজরুল ছিলেন প্রেমের কবি, গানের কবি, মানবতার কবি, একই সঙ্গে বিদ্রোহী-ও। কবি নজরুল তার কবিতার মাধ্যমে বাঙ্গালী জাতিকে মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহনে ব্যাপক ভাবে উদ্বুদ্ধ করেছিলেন। আর তাই কবি নজরুলকে জাতীয় কবির মর্যাদা দিয়েছিলেন হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। নজরুল বিদ্রোহী কবিতা লিখে ব্রিটিশ শাসনামলে জেল খেটেছেন কিন্তু তাদের কাছে মাথা নত করেননি। জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ১২০তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে সংস্কৃতিক বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের সহযোগিতায় ও জেলা প্রশাসনের আয়োজনে রোববার সকালে নজরুল মঞ্চে দ্বিতীয়দিনের আলোচনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।


জেলা প্রশাসক ড. সুভাষ চন্দ্র বিশ্বাসের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ময়মনসিংহ-৯ নান্দাইল আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আবেদীন খান, সংরক্ষিত মহিলা আসনের এমপি মনিরা সুলতানা মনি, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ^বিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. এএইচএম মোস্তাফিজুর রহমান, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জয়নাল আবেদীন, ভাইস চেয়ারম্যান আশরাফুল ইসলাম প্রমূখ। স্মারক বক্তা ছিলেন একুশে পদকপ্রাপ্ত বিশিষ্ট কবি, কথা সাহিত্যিক ও গবেষক মুহম্মদ নূরুল হুদা। স্বাগত বক্তব্য রাখেন ত্রিশাল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল জাকির।


অপরদিকে কবির ১২০তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে নজরুল স্মৃতি কেন্দ্র বিচুতিয়া বেপারির বাড়িতে সকালে আলোচনা সভা ও মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে ময়মনসিংহ স্থানীয় সরকারের উপ-পরিচালক এ কে এম গালিভ খানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (সার্বিক) নিরঞ্জন দেবনাথ। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়াম্যান মমতাজ উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি আনোয়ার হোসেন আকন্দ, সাবেক সাধারন সম্পাদক হামিদুর রহমান, কবি নজরুল বিশ^বিদ্যালয়ের ইন্সটিটিউট অব নজরুল স্টাডিজের উপ-পরিচালক মোঃ রাশেদুল আনাম প্রমূখ।

HostGator Web Hosting