| |

সর্বশেষঃ

মণ্ডপে মণ্ডপে বিদায়ের ঘণ্টা

আপডেটঃ ১:৩৩ অপরাহ্ণ | অক্টোবর ০৮, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক : অশুভ শক্তি নাশ করতে কৈলাশ ছেড়ে মর্ত্যলোকে এসেছিলেন দেবী দুর্গা। ভক্তদের দুঃখ দূর করে শান্তি বিলিয়ে দিয়ে চলে যাবেন আজ। তাই মণ্ডপে মণ্ডপে এখন বাজছে বিদায়ের ঘণ্টা। মাকে বিদায় জানাতে এরইমধ্যে সম্পন্ন হয়েছে পূজা।

নবমীর পুণ্য তিথিতে অশুভ শক্তির বিনাশ ঘটিয়ে বিশ্বে শুভ শক্তির প্রকাশ ঘটিয়েছিলেন দেবী দুর্গা। নবমী তিথি শুরু হয় সন্ধিপূজা দিয়ে। অষ্টমীর শেষ ২৪ মিনিট ও নবমীর প্রথম ২৪ মিনিট সর্বমোট ৪৮ মিনিটে সন্ধিপূজা হয়। মূলত দেবী চামুণ্ডার পূজা করা হয় এসময়। এ সময়েই দেবী দুর্গার হাতে বধ হয়েছিল মহিষাসুর। রাম বধ করেছিলেন রাবণকে।

সোমবার (৭ অক্টোবর) সকাল থেকে নবমীর আবহ শুরু হয়। তিথির শুরুতে সন্ধিপূজা বিশেষভাবে পালিত হয়। পূজা শেষে ভক্তরা দেবীর চরণে অঞ্জলি নিবেদন করেন। রাজধানীর বিভিন্ন মণ্ডপে সকাল ১০টার মধ্যেই নবমীপূজা শেষ হয়। ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দিরে সকাল ৯টায় নবমীপূজা শুরু হয়ে শেষ হয় দুপুর সাড়ে ১২টায়। এরপর ভক্তরা দেবীর চরণে অঞ্জলি নিবেদন করেন।

বিজয়া দশমীর দিন আজ মঙ্গলবার রাজধানীর ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দিরে সকাল ৯টা ৫৭ মিনিটে পূজা সম্পন্ন হয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রধান পুরোহিত রঞ্জিত চক্রবর্তী। তিনি বলেন, ‘আজ বিজয়া দশমী। মা দুর্গা সব অশুভ শক্তি বিনাশ করে শুভ শক্তির সঞ্চার করেছেন। আমরা মায়ের আশীর্বাদ নিয়ে এই পৃথিবীতে যেন সুন্দরভাবে প্রকৃত মানুষ হিসেবে বসবাস করতে পারি, তার জন্য মায়ের কাছে আমাদের আকুল আবেদন। আজ সকাল ৯টা ৫৭ মিনিটে দর্পণ বিসর্জনের মাধ্যমে মাতৃপূজা আপাতত সম্পন্ন হয়েছে।’

এদিকে মায়ের আশীর্বাদ নিতে শেষবারের মতো মন্দিরে মন্দিরে ভিড় করছেন ভক্তরা। পূজার পর মায়ের পায়ে সিঁদুর ছুঁয়ে দিচ্ছেন ভক্তরা। এরপর সিঁদুর খেলে মাকে বিদায় জানাবেন তারা। মণ্ডপে এখন বাজছে মায়ের বিদায়ের সুর।

এ আগে মহানগর সর্বজনীন পূজা উদযাপন কমিটি জানায়, বিজয়া দশমীতে পূজা শেষে সকাল ৯টায় বিসর্জন হবে। তবে আনুষ্ঠানিক বিসর্জন হবে পরে। বিকাল তিনটায় ঢাকেশ্বরী মন্দির থেকে বের হবে মূল শোভাযাত্রা। পরে নগরীর ওয়াইজঘাট, তুরাগ, ডেমরা, পোস্তগোলা ঘাটে হবে প্রতিমা বিসর্জন। এরপর একে একে বিভিন্ন মণ্ডপের প্রতিমা বিসর্জন করা হবে।

কমিটির সভাপতি শৈলেন্দ্রনাথ মজুমদার জানান, রাত ১০টার মধ্যেই আনুষ্ঠানিকভাবে বিসর্জন পর্ব শেষ করতে সবাইকে বলা হয়েছে। এছাড়া, দুপুর সাড়ে ১২টায় বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনার রিভা দাস গাঙ্গুলি ঢাকেশ্বরী মন্দির প্রাঙ্গনে আসবেন। তিনি এখানে সিঁদুর খেলা উদ্বোধন করবেন।

অন্যদিকে,বিজয়া দশমীতে গুলশান-বনানী সর্বজনীন পূজা ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে বিকাল তিনটায় বিসর্জন শোভাযাত্রা বের হবে। শোভাযাত্রাটি বনানী পূজামণ্ডপ থেকে বের হয়ে গুলশান ২ নম্বর গোলচক্বর হয়ে কামাল আতাতুর্ক রোড-কাকলি-এয়ারপোর্ট রোড হয়ে আশুলিয়ায় গিয়ে শেষ হবে। সন্ধ্যা ৬টায় আশুলিয়ার বিআইডাব্লিউটিএ ঘাটে প্রতিমা বিসর্জন দেওয়া হবে।

সারাদেশে মঙ্গলবার রাত ১০টার মধ্যে প্রতিমা বিসর্জন শেষ করার নির্দেশনা দিয়েছে বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ। তারা আরও জানায়, এবছর সারাদেশে ৩১ হাজার ৩৯৮টি মণ্ডপে দুর্গা পূজার আয়োজন হয়েছে, যা গতবারের চেয়ে ৪৮৩টি বেশি। রাজধানীতে ২৩৬টিসহ ঢাকা বিভাগে ৭ হাজার ২৭১টি মণ্ডপে এবার পূজা হয়েছে।

এছাড়া, চট্টগ্রামে ৪ হাজার ৪৫৬টি, সিলেটে ২ হাজার ৫৪৫টি, খুলনায় ৪ হাজার ৯৩৬টি, রাজশাহীতে ৩ হাজার ৫১২টি, রংপুরে ৫ হাজার ৩০৫টি, বরিশালে ১ হাজার ৭৪১টি, ময়মনসিংহে ১ হাজার ৬৩২টি মণ্ডপে দুর্গা পূজা এবার অনুষ্ঠিত হয়েছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ।

HostGator Web Hosting