| |

সর্বশেষঃ

পাকিস্তানের জার্সিতে খেলতে চান ‘বিশ্বের সবচেয়ে লম্বা ক্রিকেটার’

আপডেটঃ 7:33 pm | October 09, 2020

স্পোর্টস ডেস্ক : ক্রিকেটবিশ্বে একের পর এক বিস্ময়কর বোলার উপহার দেওয়ার ক্ষেত্রে অদ্বিতীয় পাকিস্তান। ইমরান খান, ওয়াসিম আকরাম, ওয়াকার ইউনিস, সাকলাইন মোস্তাক, শোয়েব আখতার থেকে শুরু করে হালের মোহাম্মদ আমির, ওয়াহাব রিয়াজদের কথা তো জানাই আছে।

এবার আরও এক বিস্ময়কর বোলার উপহার দিতে চলেছে পাকিস্তান ক্রিকেট। আর সেই ক্রিকেটার বোলিংয়ে কতটা বিস্ময় দেখাতে পারবেন তা হয়তো সময়ই বলে দেবে। তবে তার উচ্চতা এরইমধ্যে বিস্ময়ের কারণ হয়েছে। এই বোলার যে ক্রিকেটারদের মধ্যে সবচেয়ে লম্বা তা একপ্রকার নিশ্চিত। সাজ সাদিক নামে এক সাংবাদিক তার কিছু ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে শেয়ার করার পর রাতারাতি জনপ্রিয় হয়ে উঠেছেন তিনি।

উচ্চতা দিয়ে বিস্ময় জাগানো ক্রিকেটারের নাম মুদাস্সির গুজ্জার। তার উচ্চতা ৭ ফুট ৬ ইঞ্চি! পাকিস্তান সুপার লিগের (পিএসএল) ফ্র্যাঞ্চাইজি লাহোর কালান্দার্সে নাম লেখিয়েছেন এই বোলার। তার জুতোর সাইজও চমকে দেওয়ার মতো। ২৩.৫ ইঞ্চি সাইজের জুতো পরতে হয় তাকে।

গত বছর নভেম্বরে লাহোর কালান্দার্সের ডেভেলপমেন্ট প্রজেক্টে যোগ দেন মুদাস্সির। ক্যাম্পের কোচদের অধীনে অনুশীলনও করেছেন তিনি। তবে অতিরিক্ত উচ্চতার কারণে তার ফিটনেস নিয়ে কিছু সমস্যা দেখা দিয়েছে। কিন্তু সব প্রতিকূলতা কাটিয়ে একদিন জাতীয় দলে খেলার স্বপ্ন দেখছেন এই তরুণ ক্রিকেটার।

ক্রিকেটবিশ্বে সবচেয়ে লম্বা খেলোয়াড় হিসেবে স্বীকৃতি পেয়েছেন পাকিস্তানেরই জাতীয় দলের ফাস্ট বোলার মোহাম্মদ ইরফান। এই বাঁহাতির উচ্চতা ৭ ফুট ১ ইঞ্চি। ২১ বছর বয়সী মুদাসসার তার থেকেও ঢের লম্বা।

যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম ‘ডেইলি মেইল’ জানিয়েছে, মুদাস্সিরের বাবা-মার উচ্চতা গড়পড়তা। তার বাবা হাশিম মোহাম্মদের উচ্চতা ৫ ফুট ৬ ইঞ্চি এবং মা পারভীনের উচ্চতা ৫ ফুট ৩ ইঞ্চি। কিন্তু মুদাস্সির যখন উচ্চ বিদ্যালয়ে ভর্তি হন তখনই তার উচ্চতা ৭ ফুট ছাড়িয়ে যায়। তার এমন অস্বাভাবিক উচ্চতা নিয়ে তার পরিবার দুশ্চিন্তায় পড়ে গিয়েছিল।

পরে চিকিৎসকরা মুদাস্সিরের পরিবারকে জানান, তার হরমোনজনিত সমস্যা আছে। এমনকি তার উচ্চতার এই বৃদ্ধি কোথায় গিয়ে থামবে সেটাও চিকিৎসকরা নিশ্চিত করতে পারেননি। মুদাস্সির সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, সর্বশেষ প্রায় দেড় বছর আগে উচ্চতা মেপে দেখেছিলেন তিনি। তখন তার উচ্চতা ছিল ৭ ফুট ৬ ইঞ্চি। তবে এরপর থেকে নাকি তার উচ্চতা আর বাড়েনি।

অস্বাভাবিক উচ্চতার কারণে স্কুল-কলেজে প্রায়ই অন্যদের কাছ থেকে কটাক্ষ শুনতে হয়েছে মুদাস্সিরকে। এমনকি রিকশা কিংবা বাসে তার বসতে অসুবিধা হতো বলে নিয়মিত স্কুলেও যেতে পারতেন না তিনি। জুতো কিনতেও সমস্যায় পড়তে হতো তাকে। এজন্য পায়ের সাইজ অনুযায়ী জুতো বানিয়ে নিতে হয় তাকে। পরনের কাপড়ের ক্ষেত্রেও তাকে একই সমস্যার মুখে পড়তে হয়।

উচ্চতার কারণে নানান সমস্যার মাঝেও ইতিবাচক দিক খুঁজে বের করেছেন মুদাস্সির। তিনি বলেন, ‘উচ্চতা আমার জন্য আশীর্বাদ। কারণ জোরে দৌড়াতে পারি এবং ফাস্ট বোলার হতে পারি। ৭ মাস আগে আমি বোলার হওয়ার জন্য অনুশীলন শুরু করি। করোনা মহামারির কারণে কিছুটা বিরতি নিয়েছি। আমি আশা করি, একদিন আমি বিশ্বের সবচেয়ে লম্বা বোলার হবো। ’

HostGator Web Hosting