| |

সর্বশেষঃ

ঝিনাইগাতীর প্রধান সড়ক যানবাহনের দখলে

অদক্ষ ও অপ্রাপ্ত বয়স্ক চালকদের দৌরাত্ব বৃদ্ধি

আপডেটঃ ২:৫৪ অপরাহ্ণ | ডিসেম্বর ২৭, ২০১৬

মোশারফ হোসাইন ঝিনাইগাতী, ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম : শেরপুরের সীমান্তবর্তী ঝিনাইগাতী উপজেলা সদরের একমাত্র প্রধান সড়কটি এখন বাস, ট্রাক, ড্রীমল্যান্ড, সিএনজি, অটোরক্সিা, নছিমন, করিমন, টেম্পু, ভটভটি সহ বিভিন্ন যানবাহনের অবৈধ ষ্ট্যান্ডে পরিণত হয়েছে। এতে বাড়ছে দূর্ঘটনা এবং পথচারীদের অবর্ণনীয় দূর্ভোগ। অপরদিকে অদক্ষ ও অপ্রাপ্ত বয়স্ক চালকদের দৌরাত্বও মারাত্মক ভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। যা কিনা দেখার যেন কেউ নেই। একমাত্র জনগুরুত্বপূর্ণ প্রধান সড়কের ধানহাটি মোড়ে ঢাকাগামী ড্রীমল্যান্ডের অবৈধ ষ্ট্যান্ড, সিএনজি, অটোরিক্সা, নছিমন, করিমন, ভটভটি ইত্যাদি ষ্ট্যান্ড, হাসপাতাল সংলগ্ন উত্তর পার্শ্বেই শেরপুরগামী বাস ও বিভিন্ন যানবাহনের অবৈধ ষ্ট্যান্ড ছাড়াও এ সড়কটিতে বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে ঘন্টার পর ঘন্টা দাঁড়িয়ে থাকে বাস, ট্রাকসহ বিভিন্ন যানবাহন। ফলে ব্যবসায়ীদের ব্যবসা বাণিজ্যে চরম অচলাবস্থার সৃষ্টি হলেও সরকারী রাস্তার অযুহাতে চলছে এসব অনিয়ম। তাছাড়া গুরুত্বপূর্ণ মোড় গুলোতেও সিএনজি, অটোরিক্সাসহ বিভিন্ন যানবাহন চালকরা অবৈধ ষ্ট্যান্ড হিসেবে ব্যবহার করছে। এতে জনদূর্ভোগ চরমে পৌঁছলেও দেখার কেউ নেই। এমন মন্তব্য ভূক্তভোগী মহলের। রহস্যজনক কারণে সবার নাকের ডগার ওপর এসব অবৈধ কর্মকান্ড চললেও প্রশাসন দেখেও না দেখার ভান করায় জনমনে যেমন ক্ষোভ বাড়ছে তেমনি সৃষ্টি হচ্ছে নানা প্রশ্নের। অভিজ্ঞ মহলের মতে সরকারী সড়ক যানবাহন বা পথচারী চলাচলের জন্য। কিন্তু ঘন্টার পর ঘন্টা ভারি ও মাঝারী যানবাহন সহ বিভিন্ন যান অবৈধ ষ্ট্যান্ড হিসেবে ব্যবহারের জন্য নয়। এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছে এলাকাবাসী। এদিকে অদক্ষ ও অপ্রাপ্ত বয়স্ক চালকদের কবলে পড়ে প্রতিনিয়তই সড়ক দূর্ঘটনা বেড়েই চলছে।

আরোও পড়ুন...

HostGator Web Hosting