| |

সর্বশেষঃ

নিবন্ধনে উত্তীর্ণদের মেধার ভিত্তিতে নিয়োগ

আপডেটঃ ৭:২৫ অপরাহ্ণ | নভেম্বর ১৩, ২০১৫

ঢাকা প্রতিনিধি : দ্বাদশ শিক নিবন্ধন পরীায় উর্ত্তীণদের মেধার ভিত্তিতে নিয়োগ দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে শিা মন্ত্রণালয়।
শিা মন্ত্রণালয় বলছে, ‘বেসরকারি শিক নিবন্ধন প্রত্যয়ন কর্তৃপ আইন ২০০৫’ সংশোধনের আগে নিবন্ধন পরীার বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের কারণে মৌখিক পরীা হবে না। মেধা তালিকা অনুযায়ী নিয়োগ পাবেন তারা।
শিা মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, এখন থেকে বিসিএস পরীার মতো বংলাদেশ কর্মকমিশন (পিএসসি) এর আদলে বেসরকারি শিা প্রতিষ্ঠানে কেন্দ্রীয়ভাবে শিক নিয়োগ দেবেন বেসরকারি শিক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপ (এনটিআরসিএ)।
সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের জন্য গত ২২ অক্টোবর থেকে বেসরকারি শিাপ্রতিষ্ঠানে নিয়োগ কার্যক্রম বন্ধ রাখার পরিপত্র জারি করা হয়েছে। নতুন নিয়মে শিক নিয়োগ দেয়ার বিষয়ে শিগগিরই একটি পরিপত্র জারি করা হবে।
এদিকে,  গত মঙ্গলবার এনটিআরসিএ দ্বাদশ শিক নিবন্ধন পরীার ফল প্রকাশ করেছে। প্রকাশিত ফলে-স্কুল পর্যায়ে ২৪ হাজার ৭৪৩ জন, স্কুল-২ পর্যায়ে ৭১৯ জন, কলেজ পর্যায়ে ২১ হাজার ৫৭৭ জন পাস করেছে।
বেসরকারি শিাপ্রতিষ্ঠানে শিক নিয়োগ বন্ধের ঘোষণায় দ্বাদশ শিক নিবন্ধন পরীায় উত্তীর্ণরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েন।
শিা মন্ত্রণালয়ের নির্ভরযোগ্য সূত্র জানায়, ‘বেসরকারি শিক নিবন্ধন প্রত্যয়ন কর্তৃপ আইন ২০০৫’ এর বিধিমালা সংশোধনের আগেই দ্বাদশ শিক নিবন্ধনের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ হয়েছে। তাই লিখিত পরীায় উত্তীর্ণদের মৌখিক পরীা নেয়া হবে না। লিখিত পরীায় উত্তীর্ণদের মেধার ক্রমানুসারে একটি তালিকা করা হবে। সে অনুযায়ী তারা নিয়োগ পাবেন।
এর আগে যারা উত্তীর্ণ হয়েছেন এবং যাদের সনদের মেয়াদ আছে তাদের নিয়ে আরেকটি মেধাতালিকা করা হবে। এসব বিষয় নতুন পরিপত্রে স্পষ্ট করা হবে।
জানতে চাইলে শিা মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব (মাধ্যমিক-১) রুহী রহমান বলেন, দ্বাদশ শিক নিবন্ধনের বিজ্ঞপ্তি সংশোধিত বিধিমালা জারির আগেই প্রকাশিত হয়েছে। তাই এ েেত্র আগের নিয়ম অনুযায়ী মৌখিক পরীা হবে না। নতুন পরিপত্র জারি হলেই সব কিছু স্পষ্ট হয়ে যাবে।
প্রসঙ্গত, নতুন নিয়মে এনটিআরসিএ প্রতিবছর নভেম্বরের মধ্যে জেলা শিা কর্মকর্তার মাধ্যমে ওই জেলার বেসরকারি শিাপ্রতিষ্ঠানগুলোর পদ ও বিষয়ভিত্তিক শূন্য পদের তালিকা সংগ্রহ করবে।
ওই তালিকার ভিত্তিতে প্রথমে একটি বাছাই (প্রিলিমিনারি) পরীা হবে। এরপর ঐচ্ছিক বিষয়ে লিখিত পরীায় উত্তীর্ণদের মৌখিক পরীা নেয়া হবে। মৌখিক পরীায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের উপজেলা, জেলা ও জাতীয়ভিত্তিক মেধাতালিকা প্রকাশ করা হবে। শিাপ্রতিষ্ঠানগুলোকে এই মেধাক্রম অনুযায়ী শিক নিয়োগ দিতে হবে।
মেধাভিত্তিক মূল তালিকা ছাড়াও শূন্য পদের ২০ ভাগ প্রার্থীর সমন্বয়ে অপেমাণ তালিকাও প্রকাশ করবে। কোনো শিকের মৃত্যু ঘটলে, চাকরি ছাড়লে বা অন্য কোনো কারণে পদ শূন্য হলে ওই তালিকা থেকে শিক নিয়োগ দিতে হবে।

আরোও পড়ুন...

HostGator Web Hosting