| |

সর্বশেষঃ

বিএনপি নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে লক্ষাধিক মামলা : রিজভী

আপডেটঃ ৩:২৫ অপরাহ্ণ | সেপ্টেম্বর ০৯, ২০১৮

নিজস্ব প্রতিবেদক : বিএনপি নেতাকর্মীরা লক্ষাধিক মামলায় জর্জরিত দাবি করে দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ বলেছেন, বিভিন্নভাবে মিথ্যা মামলা দিয়ে বিরোধী দলকে দমনের কৌশল অবলম্বন করেছে সরকার।

তিনি বলেন, ‘সরকার পাগলের মতো বিএনপির নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা দিচ্ছে। এমনকি পবিত্র হজ পালনের জন্য সৌদি আরব থাকাকালীনও কয়েক জনের নামে মামলা দেয়া হচ্ছে।এমন কি মৃত ব্যক্তির নামেও মামলা দিচ্ছে তারা। এটা কোন ধরনের মামলা?’।

রোববার দুপুরে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তিনি।

রিজভী বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জীবন নিয়ে দলীয় নেতাকর্মীসহ দেশবাসী চরম উৎকণ্ঠায় আছেন। বেগম জিয়া এতটাই অসুস্থ যে, তার বাম হাত ও পা প্রায় অবশ হয়ে যাচ্ছে। চলাফেরা দূরের কথা, তিনি উঠে দাঁড়াতেও পারছেন না। সাংবাদিকরা তার এই অবস্থা সচক্ষে দেখে সংবাদ প্রকাশ করেছেন।

তিনি বলেন, শনিবার আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ ও কারা কর্তৃপক্ষ একই সুরে বলেছেন বেগম জিয়া ততটা অসুস্থ নন। তারা বলেছেন বেগম জিয়া আগেও যেসব রোগে ভুগতেন এখনও সেসব রোগেই ভুগছেন।’

বিএনপির এই সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব বলেন, বেগম জিয়ার অসুস্থতা নিয়ে হানিফ ও কারা কর্তৃপক্ষের বক্তব্য নিষ্ঠুর রসিকতা। তাকে পরিকল্পিতভাবে নিঃশেষ করে দিতেই আওয়ামী সরকার চিকিৎসা না দিয়ে অমানবিক পথ বেছে নিয়েছে।

রিজভী বলেন, ব্যক্তিগত চিকিৎসক, মেডিকেল বোর্ডের সদস্য এবং সর্বশেষে আইনজীবীরা বেগম জিয়াকে বাঁচাতে অবিলম্বে ইউনাইটেড হাসপাতাল অথবা বেসরকারি কোনো বিশেষায়িত হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসার জন্য জোর দাবি জানিয়েছেন। কিন্তু এখনও সরকার ও কারা কর্তৃপক্ষ কোনো ব্যবস্থা নেয়নি।

তিনি বলেন, কারাগারে খালেদা জিয়ার কোনো চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে না। তার জীবন হুমকির মুখে থাকবে, আর দেশবাসী চেয়ে চেয়ে দেখবেন তা হবে না। কাল বিলম্ব না করে তাকে ইউনাইটেড বা অন্য কোনো বেসরকারি বিশেষায়িত হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসার ব্যবস্থা করতে হবে। বেগম জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে টালবাহানার পরিণতি ভাল হবে না।

রিজভী বলেন, ‘অভুক্ত রেখে, বিনা চিকিৎসায় ভোগাতে বেগম জিয়াকে কারাবন্দী রেখেছেন শেখ হাসিনা। কারাবন্দী বেগম জিয়ার ভাগ্য আদালতের ওপর নয়, নির্ভর করে শেখ হাসিনার মর্জির ওপর।’

বিএনপির এই নেতা আরও বলেন, ‘বাংলাদেশ নামক ‘পুলিশী রাষ্ট্রটি’ এখন শাসিত হচ্ছে এমন এক ব্যক্তির দ্বারা, যার ক্রোধানলে দেশের গণতন্ত্র পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। দেশজুড়ে এখন চলছে গায়েবি মামলার হিড়িক। মৃত ব্যক্তিকেও এখন ককটেল ছুঁড়ে মারতে দেখছে পুলিশ।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আহমেদ আজম খান, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালাম, সহ- সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ প্রমুখ।

আরোও পড়ুন...

HostGator Web Hosting