| |

সর্বশেষঃ

/ নারী ও শিশু

ব্ল্যাকমেইলের শিকার হয়ে স্কুলছাত্রী সেমন্তির আত্মহত্যা!

জুলাই ০৬, ২০১৯

বিশেষ সংবাদদাতা : বগুড়ায় দশম শ্রেণীর স্কুলছাত্রী মায়িশা ফাহমিদা সেমন্তির (১৫) আত্মহত্যা রহস্য উন্মোচিত হয়েছে। ‘প্রেমিক’ কলেজছাত্র আবির আহমেদ (২০) ব্ল্যাকমেইল করে গত ৮ মাস ধরে ধর্ষণ, এ দৃশ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার ও অবহেলা করায় সেমন্তি গত ১৭ জুন রাতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। সেমন্তির বাবা হাসানুল মাশরেক রুমন অভিযোগ করেন, এক নারীসহ আবিরের সাত সদস্যের একটি গ্রুপ আছে। সাদিয়া রহমান নামে ওই নারী সদস্যের মাধ্যমে মেয়ে সংগ্রহ করে আবির। ওই গ্রুপের সদস্যরা মেয়েদের প্রেমের ফাঁদে ফেলে ধর্ষণ করে থাকে। রুমন মেয়ে সেমন্তির মোবাইল ফোনের মেমোরি কার্ড থেকে শনিবার সকালে এসব তথ্য পেয়েছেন। এর পরপরই তথ্যগুলো বগুড়ার পুলিশ...

ধর্ষণের পর গলায় রশি পেঁচিয়ে হত্যা করা হয় সায়মাকে

জুলাই ০৬, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজধানীর ওয়ারীর বনগ্রামে হত্যার শিকার শিশু সামিয়া আফরিন সায়মার (৭) লাশের ময়নাতদন্তে নির্মমতার সব আলামত পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা মেডিক্যাল কলেজে (ঢামেক) হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহমুদ। শরিবার দুপুরে ময়নাতদন্ত শেষ তিনি বলেন, প্রাথমিকভাবে তার শরীরে ধর্ষণের আলামত মিলেছে। ধর্ষণের পর তাকে গলায় রশি পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে মনে হচ্ছে। তিনি জানান, ময়নাতদন্তকালে তার যৌনাঙ্গে ক্ষতচিহ্ন, মুখে রক্ত ও আঘাতের চিহ্ন, ঠোঁটে কামরের দাগ দেখা গেছে। এগুলো খুবই স্পষ্ট ছিল। ডিএনএ পরীক্ষার জন্য তার শরীর থেকে কিছু আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে। সব প্রতিবেদন পেলে এ বিষয়ে বিস্তারিত বলা যাবে বলে জানান সোহেল...

বৃদ্ধা মাকে রাস্তায় ফেলে গেলেন মেয়ে

মে ০৭, ২০১৯

স্টাফ রিপোর্টার, ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম : ‘বাবা আমার একটা ব্যবস্থা কইরা দেন, আমি কই যামু, রাতে চোখে দেহি না, আমার কেউ নাই’ অঝরে কাঁদতে কাঁদতে এভাবেই কথাগুলো বলছিলেন রাস্তার পাশে পড়ে থাকা ৮০ বছরের বৃদ্ধা হামিদা খাতুন। এ সময় পাশ দিয়ে মানুষ হেঁটে গেলেও অসহায় এ বৃদ্ধার কথা শোনার যেন কেউ নেই। এ প্রতিবেদকের সঙ্গে বিলাপের সুরে বৃদ্ধা হামিদা খাতুন বলতে থাকেন, ‘রোববার সকালে উঠে হাত মুখ ধোয়ার পর একটা রুটি খাওয়াইছে। এরপর বলে চল, আজকে তরে থইয়াইব (রেখে আসব)। আইজ তরে মমসিং (ময়মনসিংহ) থইয়া আসব। আগে আমারে অনেক দেখছে, ইদানীং কের লাইগা আমার লগে এমডা লাগাইছে। সে কয় তুই আমার মা না, আমি তোর মাইয়া না। আমারে কয় এইহানে বইয়া বইয়া খাস, তোর বাপ দাদার কামাই? কিছু দিছস আমারে? এই...

আব্বু-আম্মু আমাকে মাফ করে দিও

এপ্রিল ২৭, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক : ‘আমি বাঁচতে চেয়েছিলাম। কিন্তু মাহিবি আর তার মা আমাকে বাঁচতে দেয়নি। আমি বার বার মাহিবির কাছে কুত্তার মতো গেছি। অথচ সে আমাকে পায়ে ঠেলে তাড়িয়ে দিয়েছে। মাহিবির মা-বোন আমাকে যা-তা বলেছে। আমাদের রিলেশন এমন পর্যায় চলে গেছে যে আমি আর ফিরে আসতে পারলাম না। আব্বু-আম্মু আমাকে মাফ করে দিও। আমার লাশের আশপাশেও যেন মাহিবি আসতে না পারে।’ প্রেমিক মাহিবি ও তার মা-বোনকে দায়ী করে তিন পৃষ্ঠার এমন সুইসাইড নোট লিখে আত্মহত্যা করেন ইডেন কলেজের অনার্স দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী সায়মা কালাম মেঘা (১৯)। গত রোববার সন্ধ্যায় ঢাকার কাঁঠালবাগান এলাকার ৭৪/১ ফ্রি স্কুল স্ট্রিটের চারতলা বাড়ির চারতলার একটি কক্ষ থেকে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায়...

ময়মনসিংহে বিষের বোতল নিয়ে স্বামীর বাড়িতে প্রথম স্ত্রীর অনশন!

এপ্রিল ২৪, ২০১৯

গৌরীপুর প্রতিনিধি : ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলার ডৌহাখলা ইউনিয়নের পানাটি গ্রামে পুলিশ কনস্টেবল মো. জাহাঙ্গীর আলমের বাড়িতে বিষের বোতল নিয়ে প্রথম স্ত্রীর দাবি নিয়ে অনশন শুরু করেছে খাদিজা আক্তার। বুধবার দ্বিতীয় দিনেও স্বামীর গৃহে প্রবেশ করতে না পারায় অনশনে অনড় সেই তরুণী। অপরদিকে স্বামীকে যৌতুকের টাকা দিতে না পারায় স্বামীর বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেয়া হয়েছে এ ইউনিয়নের বেদাশ্রম গ্রামের শামছুল হকের কন্যা মোছা. সুমা আক্তারকে। তাকে বাড়ি থেকে তাড়িয়ে অনুমোদন ছাড়াই দ্বিতীয় বিয়ে করায় তার স্বামী আবদুর রহমানের বিরুদ্ধে সিনিয়র জুডিশিয়াল আদালতে মঙ্গলবার মামলা রুজু করেন তিনি। পুলিশ সদস্য মো. জাহাঙ্গীর আলম ডৌহাখলা বাজারে মনোহারী দোকান দেয়ার সময় ২০১২...

ঈশ্বরগঞ্জে হার না মানা স্বর্ণা

এপ্রিল ১০, ২০১৯

স্টাফ রিপোর্টার, ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম : শারীরিক প্রতিবন্ধকতা দমাতে পারেনি স্বর্ণা রানী সরকারকে। দুই হাত মিলিয়ে কলম ঘুরিয়ে উচ্চ মাধ্যমিক (এইচএসসি) পরীক্ষা দিচ্ছেন এই শিক্ষার্থী। ঈশ্বরগঞ্জের ডিএস কামিল মাদ্রাসা পরীক্ষা কেন্দ্রে ইসলামিয়া টেকনিক্যাল অ্যান্ড বি এম কলেজ থেকে এইচএসসি (ভোকেশনাল) পরীক্ষা দিচ্ছেন স্বর্ণা রানী সরকার। উপজেলার রাজিবপুর ইউনিয়নের চরপাড়া গ্রামের দুলাল চন্দ্র সরকারের মেয়ে স্বর্ণা রানী দুই ভাই-বোনের মধ্যে সবার ছোট। স্বর্ণা রানী সরকার জাগো নিউজকে বলেন, দারিদ্র্যের কারণে আমার বাবা গাজীপুর শহরের হারিনাল এলাকায় একটি ওয়ার্কশপের দোকানে কাজ নেন। সেখানে একটি ভাড়া বাসায় থাকতাম আমরা। তখন স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ে আমি পঞ্চম...