সংবাদ শিরোনাম

 

ময়মনসিংহের গৌরীপুরের ৫০ শয্যা বিশিষ্ট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে অস্ত্রোপচার (ওটি) কক্ষ চালুর প্রস্তুতি প্রায় শেষ পর্যায়ে। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে আনুষ্ঠানিক ভাবে অক্টোরের মাঝামাঝি সময়ে অস্ত্রোপচার কক্ষ উদ্বোধন করা হবে বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কর্তৃপক্ষ।

 

অস্ত্রোপচার কক্ষ চালুর পর অন্তঃসত্ত্বা নারীদের প্রসূতি অস্ত্রোপচার সহ ও অন্যান্য অস্ত্রোপচার পাবেন সুবিধা পাবেন রোগীরা।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গৌরীপুর উপজেলার ১ টি পৌরসভা ও ১০ টি ইউনিয়নের প্রায় সাড়ে তিন লাখ মানুষের চিকিৎসা সেবার ভরসাস্থল এই স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স। ২০১৬ সালে ৩১ শয্যা থেকে ৫০ শয্যায় উন্নীত হয় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সটি। কিন্ত প্রয়োজনীয় জনবল ও চিকিৎসা সরঞ্জামের অভাবে অস্ত্রোপচার সেবা চালু হয়নি। ফলে কোনো প্রসূতি মা অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সন্তান জন্ম দিতে পারতেন না। তাঁদের অতিরিক্ত টাকা খরচ করে জেলা শহর হাসপাতাল কিংবা বেসরকারি হাসপাতাল ও ক্লিনিকে গিয়ে প্রসূতি অস্ত্রোপচার করাতে হতো। এক্ষেত্রে বিত্তবানদের সমস্যা না হলেও অর্থকষ্টে পড়তেন দরিদ্র রোগীরা।

 

চলতি বছর ফেব্রুয়ারিতে ডাঃ ইকবাল আহমেদ নাসের উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা (টিএইচও) হিসাবে যোগদানের পর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসা সেবার মান উন্নত করার চেষ্টা শুরু করেন। তারই ধারাবাহিকতায় অস্ত্রোপচার কক্ষ চালুর উদ্যোগ নেয়া হয়।

 

জানা গেছে, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের নতুন ভবনের দ্বিতীয় তলায় লেবার ওয়ার্ড সহ পাঁচটি কক্ষ নিয়ে অস্ত্রোপচার ইউনিট চালু করা হবে। ইতিমধ্যে অস্ত্রোপচার কক্ষের প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম স্থাপন করা হয়েছে। এখন চলছে সেন্ট্রাল অক্সিজেন স্থাপনের কাজ। অস্ত্রোপচার ইউনিটে একজন গাইনী অবস, একজন শল্য চিকিৎসক, একজন অবেদিনবিদ, একজন শিশু ডাক্তার থাকবে। এছাড়াও ইউনিটে থাকবে একাধিক সহকারী ডাক্তার , নার্স ও ওয়ার্ডবয়।

 

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা (টিএইচও) ডাঃ ইকবাল আহমেদ নাসের বলেন, অক্টোবর মাঝামাঝি সময়ে অস্ত্রোপচার কক্ষ উদ্বোধনের প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে। এখানে অন্তঃসত্ত্বা নারীরা প্রসূতি অস্ত্রোপচার সেবা পাবে। তবে আমাদের জেনারেল সার্জন প্রয়োজন। তাহলে ছোটখাটো অপারেশন করা যাবে।

 

 

 

 

 

ইউএনও হাসান মারুফ বলেন, বর্তমান সরকার জনগণের দোড়গোড়ায় স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দিতে আন্তরিক প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের অস্ত্রোপচার কক্ষ চালু হলে প্রসূতি ও অন্যান্য চিকিৎসা সেবার জন্য টাকা খরচ করে জেলা শহর ও ক্লিনিকে যাওয়া লাগবে না। এখানেই স্বল্প খরচে ভালো চিকিৎসা পাওয়া যাবে।

 

 


মতামত জানান :

 
 
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম