সংবাদ শিরোনাম

 

 

‘ডিজিটাল ট্রান্সফরমেশন অ্যান্ড হাইব্রিড ক্লাউড ইনফ্রাস্ট্রাকচার’ ক্যাটাগরিতে রেড হ্যাট অ্যাপাক অ্যাওয়ার্ডস ২০২২ পেয়েছে গ্রামীণফোন। সম্প্রতি, বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় ওপেন সোর্স সল্যুশন প্রদানকারী রেড হ্যাট, ইনকর্পোরেটেড কর্তৃক আয়োজিত ‘রেড হ্যাট সামিট: কানেক্ট’ অনুষ্ঠানে গ্রামীণফোনকে এ স্বীকৃতি প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠানটি ছয়টি অঞ্চলের প্রায় তিন হাজার অংশগ্রহণকারী নিয়ে আয়োজিত ধারাবাহিক আয়োজনের অংশ।

 

রেড হ্যাট অ্যাপ্যাক ইনোভেশন অ্যাওয়ার্ডস ২০২২ এ পাঁচটি ক্যাটাগরিতে পুরস্কার প্রদান করা হয়। এগুলো হলো: ডিজিটাল ট্রান্সফরমেশন, হাইব্রিড ক্লাউড ইনফ্রাস্ট্রাকচার, ক্লাউড-নেটিভ ডেভেলপমেন্ট, অটোমেশন ও রেজিলিয়েন্স। ডিজিটাল বাংলাদেশের কানেক্টিভিটি পার্টনার গ্রামীণফোন সেরা সহযোগিতামূলক পাবলিক, প্রাইভেট বা ওপেন হাইব্রিড ক্লাউড ডেপ্লয়মেন্টের জন্য পুরস্কার লাভ করেছে। গ্রামীণফোন পরিবর্তনশীল ব্যবসায়িক ল্যান্ডস্কেপের সাথে খাপ খাইয়ে নিতে আধুনিক এবং উদ্ভাবনী গ্রাহক অভিজ্ঞতা তৈরি করার জন্য রেড হ্যাট ওপেন সোর্স কর্তৃক স্বীকৃতি পেয়েছে।

 

ডিজিটাল ট্রান্সফরমেশন ক্যাটাগরিতে এমন সব প্রতিষ্ঠানকে স্বীকৃতি দেয়া হয়েছে, যারা সফলভাবে আইটি সংক্রান্ত চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করেছে এবং ডিজিটাল এন্টারপ্রাইজ হিসেবে কার্যকরভাবে প্রতিযোগিতা করার জন্য বিজনেস ভ্যালু তৈরি করেছে। অন্যদিকে, হাইব্রিড ক্লাউড ইনফ্রাস্ট্রাকচার ক্যাটাগরি সহযোগিতামূলক পাবলিক, প্রাইভেট বা উন্মুক্ত হাইব্রিড ক্লাউড স্থাপনার বিষয়টিকে তুলে ধরা হয়। চলতি বছরের অনুষ্ঠানের থিম ছিলো ‘এক্সপ্লোর হোয়াট’স নেক্সট।’ এ থিমকে ধারণ করেই গ্রাহক সেবার মানোন্নয়নে, ব্যয় সাশ্রয়ে এবং ডেটার সহজলভ্যতার সুযোগ উন্মোচনে ও ডিজিটাল রূপান্তরের যাত্রা ত্বরাণ্বিত করার ক্ষেত্রে কার্যকারিতাকে আরও উন্নত করতে গ্রামীণফোন রেড হ্যাটের বিভিন্ন সল্যুশন (রেড হ্যাট ওপেনস্ট্যাক, ওপেনশিফট ও রেড হ্যাট অ্যানসিবল অটোমেশন প্ল্যাটফর্ম) নিয়ে কাজ করেছে।

 

এ অ্যাওয়ার্ড অর্জন নিয়ে গ্রামীণফোনের চিফ টেকনোলজি অফিসার, জয় প্রকাশ বলেন, “গ্রাহকদের মতামত সহ তাদের ক্রমবর্ধমান ডিজিটাল চাহিদা ও প্রত্যাশার বিষয়টি আমরা সবসময় প্রাধান্য দিয়ে থাকি এবং তাদের প্রত্যাশা পূরণ ও সন্তুষ্টির জন্য আমরা বিভিন্ন সল্যুশন ডিজাইন করি। ক্রেতাদের চাহিদাকে প্রাধান্য দিয়ে ধারাবাহিকভাবে উদ্ভাবন ও সেবার আধুনিকীকরণের মাধ্যমে দেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় টেলিকম প্রতিষ্ঠান হয়ে থাকাই আমাদের মূলমন্ত্র। এ লক্ষ্যে আমরা রেড হ্যাট -এর সল্যুশনগুলোর মাধ্যমে আমাদের ডিজিটাল সেবাদাতা প্ল্যাটফর্মগুলোর রূপান্তরে সক্ষম হয়েছি, যা ওপেন সোর্স এবং হাইব্রিড ক্লাউডের সুবিধার মাধ্যমে দক্ষ ও সাশ্রয়ী হওয়ার পাশাপাশি গ্রাহক সেবা ও অভিজ্ঞতাকে উন্নত করতে সহায়তা করেছে।”

 

এ নিয়ে রেড হ্যাট এপিজেসি এর সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট ও জেনারেল ম্যানেজার মার্জেট আন্দ্রেয়েসি বলেন, “এশিয়া প্যাসিফিকের ব্যবসায়িক ল্যান্ডস্কেপের পরিবর্তনের গতি আরো ত্বরাণ্বিত হবে। এ কারণে, আমরা আমাদের গ্রাহকদের অর্জনগুলো উদযাপন করছি; আমাদের গ্রাহকদের মধ্যে যারা ওপেন সোর্স ব্যবহারের মাধ্যমে তাদের বাজার এবং গ্রাহকদের ট্রেন্ডের প্রতি প্রতিশ্রুতিশীল এবং সাড়া প্রদানের বিষয়টিকে প্রদর্শন করতে পেরেছে তাদেরকে স্বীকৃতি দেয়া হয়েছে।” তিনি আরো বলেন, “ব্যবসায়িক প্রবৃদ্ধি ও গ্রাহকদের জন্য হাইব্রিড ক্লাউড, ডেটা অ্যানালিটিকস এবং এজ কম্পিউটিং এর মতো উদ্ভাবনী প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে আমাদের বিজয়ীরা অনন্য সক্ষমতা প্রদর্শন করেছে।”

 

রেড হ্যাট বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় এন্টারপ্রাইজ ওপেন- সোর্স সফটওয়্যার সল্যুশন প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান। প্রতিষ্ঠানটি কমিউনিটি- পাওয়ার্ড অ্যাপ্রোচের মাধ্যমে নির্ভরযোগ্য ও হাই- পারফর্মিং লিনাক্স, হাইব্রিড ক্লাউড, কন্টেইনার ও কুবারনেটস প্রযুক্তি সেবা দেয়। পুরস্কার অর্জন, প্রশিক্ষণ ও পরামর্শ সেবা প্রদানের বিষয়টি রেড হ্যাটকে ফরচুন ৫০০ এর তালিকায় স্থান করে নিতে সহায়তা করেছে।

 

 


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম