| |

সর্বশেষঃ

মাসের পর মাস সিনেমা হলে থেকেছি: পূর্ণিমা

আপডেটঃ 3:16 pm | February 08, 2021

বিনোদন ডেস্ক : দুই যুগেরও বেশি সময় ধরে অভিনয়ে মুগ্ধতা ছড়িয়ে যাচ্ছেন ঢাকাই সিনেমার নন্দিত চিত্রনায়িকা পূর্ণিমা। পুরো নাম দিলারা হানিফ রীতা হলেও সবার কাছে তিনি পূর্ণিমা নামেই পরিচিত। যতই দিন যাচ্ছে ততই যেন রূপের ঝলকানি বাড়ছে তার। সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রতিনিয়ত নিত্য নতুন ছবি প্রকাশ করছেন আর ভক্ত অনুরাগীদের ভালোবাসায় সিক্ত হচ্ছেন।

দীর্ঘ ক্যারিয়ারে অসংখ্য সফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন তিনি। ঢাকাই সিনেমার ইতিহাসে পূর্ণিমা যেন একটি অধ্যায়ের নাম। অনেকদিন ধরেই বড় পর্দায় দেখা না মিললেও চলতি বছরে মুক্তি পেতে পারে তার নতুন দুই সিনেমা ‘গাঙচিল’ ও ‘জ্যাম’।

এদিকে গেল মাসের শেষের দিকে প্রসাধনী ব্র্যান্ড রিবানা’র শুভেচ্ছাদূত হয়েছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত এ চিত্রনায়িকা। নতুন বছরের শুরুটা তার বেশ ভালোভাবেই হয়েছে। শুধু তাই নয়, তিনি প্রথমবারের মত কাজ করতে চলেছেন ওয়েব ফিল্মে। ‘মুন্সিগিরি’ ফিল্মটি পরিচালনা করবেন অমিতাভ রেজা চৌধুরী। এ নিয়েও বেশ উচ্ছ্বসিত ‘মনের মাঝে তুমি’ খ্যাত এই নায়িকা।

‘মুন্সিগিরি’ নিয়ে বাংলাদেশ জার্নালকে পূর্ণিমা বলেন, ‘আমি তো আসলে পর্দার জন্যই কাজ করেছি। সেখান থেকে নতুন এই ওটিটি প্লাটফর্মের জন্য করা এটা আমার প্রথম কাজ হতে যাচ্ছে। এ মাসের ১৫ তারিখ থেকেই আমার আর চঞ্চলের শুটিং শুরু হওয়ার কথা ছিলো। কিন্তু এরমধ্যে অমিতাভ রেজার বাবা মারা গেলেন। এখন সেসব পরিস্থিতি সামলে কবে তিনি কাজ শুরু করেন, দেখা যাক!’

‘মনের মাঝে তুমি’ খ্যাত এই নায়িকা আরও বলেন, ‘মুন্সিগিরি’ নিয়ে আমাদের লুক টেস্ট বাকি রয়েছে, গল্প-স্ক্রিপ্ট নিয়ে বসা, তারপর শুটিংয়ে যাওয়ার আগে রিহার্সেল করা বাকি রয়েছে। যেহেতু সবকিছু নিয়ে এখনও বসা বাকি তাই এখনই গল্প, চরিত্র নিয়ে কিছু বলতে পারছি না।’

প্রথমবার ওটিটি প্লাটফর্মে কাজ করা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘অন্যান্য অনেকের মত এই প্লাটফর্মটা আমার জন্যও নতুন। কারণ, এবারই প্রথম কাজ করছি। সে অর্থে এখনও কোনো অভিজ্ঞতা নেই। ‘মুন্সিগিরি’ দিয়েই আসলে শুরু করতে যাচ্ছি। নেটফ্লিক্স, অ্যামাজনে মানুষ মান্থলি পেমেন্ট করে কন্টেন্ট দেখেছে। আর বাংলাদেশে যেসব ওটিটি প্লাটফর্ম আসছে সেসব অ্যাপস কিনে দর্শক যদি দেখে তাহলে আমার মনে হয় এটারও ভবিষ্যৎ ভালো। কিন্তু এখানে পাইরেসির বিষয়টা আমি জানিনা ঠিক।’

২০০৩ সালে মুক্তি পাওয়া ‘বাস্তব’ সিনেমার ‘বুক চিন চিন করছে হায়’ গানটি চলতি সপ্তাহে কোটি ভিউ পার করেছে। যা ১৪ দিন আগে পর্যন্ত ছিলো মাত্র ৫মিলিয়ন ভিউ। ‘শিল্পী’ নাটকে এ গানটি নতুন আয়োজনে ব্যবহার করা হয়েছে। প্রকাশ্যে আসার পর এটি রীতিমত ভাইরাল, ফিরছে দর্শকের মুখে মুখে।

এ নিয়ে পূর্ণিমার ভাষ্য, ‘আমি নাটকটি দেখিনি এখনও, তবে গানের বিভিন্ন ক্লিপস দেখেছি। আসলে এখন কোটি ভিউয়ের একটা ট্রেন্ড চলছে; আর এই ট্রেন্ডে আমি নেই। এখন নাটকে ব্যবহার করার হয়তো এটা নতুন করে আলোচনায় এসেছে বা কোটি ভিউ হয়েছে। এই গানটা বহু বছর আগের পুরনো গান, অনেক জনপ্রিয় একটা গান। এটা ছাড়াও আমার সিনেমার অনেক জনপ্রিয় গান রয়েছে যেগুলো এখনো দর্শকের মুখে মুখে ফিরে। এখন ইউটিউবের কারণে সেসব গান নতুন করে মানুষ শুনছে, দেখছে। আর আমাদের তখনকার সময়ে তো ইউটিউব ছিলো না, থাকলে এতদিনে সেগুলো অনেক ছাড়িয়ে যেতো। তখন মানুষ সিনেমা হলে গিয়ে দেখতো। কোটি কোটি দর্শক দেখতে যেতো সিনেমা হলে, আর কত মাসের পর মাস সিনেমা হলে থেকেছি, সিনেমা মুক্তির পর! মাসের পর মাস সিনেমা চলতো, দর্শকদের সাথে বসে সিনেমা দেখতাম। অনেক বক্সঅফিস হিট সিনেমা দিয়েছি, আমরা সেগুলো নিয়ে খুশি থাকতাম। সেগুলো নিয়ে এখন কোনো রিভিউ নেই কেন?’

‘গাঙচিল’ ও ‘জ্যাম’ সিনেমার আপডেট জানাতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘গাঙচিল’ সিনেমার কাজ প্রায় শেষ। দশভাগের মত কাজ বাকি আছে। এটার জন্য নোয়াখালী শুটিং করতে হয়েছে আমাদের। যার জন্য সেখানে একবারে থেকে কাজ শেষ করতে পারিনি। এরপর করোনা চলে আসলো। সবকিছু মিলিয়ে অনেকটা সময় লাগছে। এখন দেখা যাক এ বছর বাকি কাজটুকু শেষ হয় কিনা! আর ‘জ্যাম’ এর কাজ আগেই শেষ হয়ে যাওয়ার কথা ছিলো কিন্তু কোনো কারণে সেটি এখন আটকে আছে।

মার্চ মাস থেকে শুরু হতে যাচ্ছে রিয়েলিটি শো ‘সেরা রাঁধুনী’। এই শো-য়ের মাধ্যমে আড়াই বছর পর আবারো একই অনুষ্ঠানের বিচারক হিসেবে কাজ করতে যাচ্ছেন তিনি। এ নিয়ে পূর্ণিমা বলেন, ‘মার্চ মাস পুরোটা এই শো নিয়েই থাকবো। এর আগেও একই অনুষ্ঠানের বিচারক হিসেবে কাজ করেছিলাম। সেটা ছিলো আমার জন্য নতুন এক অভিজ্ঞতা। আবারো একই অনুষ্ঠানের বিচারক হিসেবে কাজ করতে যাওয়াটা আমার জন্য সম্মানের বলেই মনে করি।’

HostGator Web Hosting