সংবাদ শিরোনাম

 

মহামারি করোনাভাইরাস প্রতিরোধী টিকার ৩ কোটি ৩৬ লাখ ৯১ হাজার ৫১৫ ডোজ সারা দেশে প্রয়োগ করা হয়েছে। এর মধ্যে ২ কোটি ৪ লাখ ৩৭ হাজার ১১৪ জন প্রথম ডোজ এবং ১ কোটি ৩২ লাখ ৫৪ হাজার ৪০১ জন টিকার দ্বিতীয় ডোজ পেয়েছেন।

টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণকারীদের মধ্যে এ পর্যন্ত পুরুষ ১ কোটি ১৬ লাখ ২৬ হাজার ৫৪৬ ও নারী ৮৮ লাখ ১০ হাজার ৫৬৮ জন। দ্বিতীয় ডোজ টিকা নেওয়াদের মধ্যে পুরুষ ৭৭ লাখ ২৩ হাজার ৯৯৬ ও নারী ৫৫ লাখ ৩০ হাজার ৪০৫ জন।

দেশে এ পর্যন্ত অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা কোভিশিল্ড প্রয়োগ হয়েছে ১ কোটি ২২ লাখ ৪ হাজার ১৪৫ ডোজ। ফাইজার-বায়োএনটেকের টিকা প্রয়োগ হয়েছে ১ লাখ ৯১১ ডোজ। চীনের সিনোফার্মের টিকা প্রয়োগ হয়েছে ১ কোটি ৬৭ লাখ ৭৪ হাজার ৯৮৬ ডোজ। আর মডার্নার টিকা প্রয়োগ হয়েছে ৪৬ লাখ ১১ হাজার ৪৭৩ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক অধ্যাপক ডা. মিজানুর রহমান স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বৃহস্পতিবার এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে আরো জানানো হয়, বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৫টা পর্যন্ত দেশে ৪ কোটি ৫ লাখ ২৬ হাজার ৬৯০ জন করোনা টিকার জন্য নিবন্ধন করেছেন। এরমধ্যে জাতীয় পরিচয়পত্রের নম্বর দিয়ে ৩ কোটি ৯৯ লাখ ৮৭ হাজার ২৭ জন এবং পাসপোর্ট নম্বর দিয়ে নিবন্ধন করেছেন ৫ লাখ ৩৯ হাজার ৬৬৩ জন।

গত বছরের ৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়। ১৮ মার্চ আসে করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রথম মৃত্যুর তথ্য। এরপর চলতি বছরের ফেব্রুয়ারির শুরু থেকে সারা দেশে গণটিকাদান শুরু করে সরকার।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম