সংবাদ শিরোনাম

 

কিশোরগঞ্জের হাওর উপজেলা নিকলীর ছাতিরচর বাসিন্দা শৌখিন মাছশিকারি মো. রফিকুল মিয়ার বড়শিতে ধরা পড়েছে ৮ কেজি ওজনের বড় আইড় মাছ। রোববার (১৯ সেপ্টেম্বর) সকাল ৯টার দিকে ছাতিরচর হাওরে এটি ধরা পড়ে।

জানা গেছে, বছরের এ সময়টায় হাওরের পানি থাকায় মাঝেমধ্যেই এ রকম বিভিন্ন প্রজাতির বড় বড় মাছ বরশি ও জালে ধরা পড়ে। মাছ ধরে জীবিকা নির্বাহ করে থাকে একশ্রেণির মানুষ।

ছাতিরচর হাওরের মাছশিকারি মো. রফিকুল মিয়ার জানান, হাওরে এখন পানি থাকায় প্রতিদিনই শখের বসে বড়শি দিয়ে মাছ ধরি। রোববার সকালেও বড়শি দিয়ে মাছ ধরতে যাই। সকাল ৯টার দিকে বড়শিতে সজোরে টান লাগে। এতে বুঝতে পারি বড়শিতে বড় কোনো মাছ আটকা পড়েছে।

তিনি আরও বলেন, বড়শি টেনে তুলতেই দেখি বিশাল আইড় মাছ। পরে এটি স্থানীয় বাজারে নিয়ে আসতেই উৎসুক জনতার ভিড় জমে। পার্শ্ববর্তী বাজিতপুর উপজেলার হিলচিয়া বাজারের গ্রামবাংলা মৎস্য আড়তের মাছ ব্যবসায়ী ধীরেন্দ্র দাস (ভক্ত) মাছটি ১২ হাজার টাকা দিয়ে কিনে নেন।

মাছ ব্যবসায়ী ধীরেন্দ্র দাস বলেন, ছাতিরচর হাওরের মাছশিকারি রফিকুল মিয়ার বড়শিতে আইড় মাছটি ধরা পড়লে স্থানীয় বাজারে নিয়ে আসেন তিনি। আমি সেই বাজার থেকে মাছটি ১২ হাজার টাকায় কিনেছি। এখন বিক্রয় করার জন্য মাছটি আমি পার্শ্ববর্তী বাজিতপুর উপজেলার হিলচিয়া বাজারের গ্রামবাংলা মৎস্য আড়তে তুলেছি।

নিকলী উপজেলার মৎস্য কর্মকর্তা মো. ইসমাইল হোসেন জানান, এখন আর আগের মতো বড় বড় মাছ সব স্থানে পাওয়া যায় না। তবে হাওরে এখনো বিভিন্ন প্রজাতির বড় বড় মাছ পাওয়া যায়।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম