সংবাদ শিরোনাম

 

চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাসের প্রতি জন্মদিনে তার মা শেফালী বিশ্বাস খুব মজা করে পায়েস রান্না করতেন। মেয়েকে খাইয়ে দিতেন নিজের হাতেই।

কিন্তু দুই বছর ধরে মায়ের সেই সুন্দর স্মৃতি মনে করেই জন্মদিন কাটাতে হচ্ছেন এই তারকাকে।

 

২০২০ সালের ১৭ সেপ্টেম্বর অপু বিশ্বাসের মা পৃথিবী থেকে বিদায় নেন। মাকে ছাড়া সোমবার (১১ অক্টোবর) দ্বিতীয়বারের মতো এলো নায়িকার জন্মদিন। সহকর্মী, বন্ধু ও অসংখ্য ভক্তের শুভেচ্ছার পরও চারপাশেই শুধু মাকেই খুঁজছেন তিনি।

অপু বিশ্বাস বলেন, জন্মদিনে মাকে খুব মিস করছি। প্রত্যেক জন্মদিনে মা আমার পাশে ছিলেন। এখন আর মা নেই, মা ছাড়া পৃথিবীটা খুব শূন্য লাগছে।

তিনি আরও জানান, এবারের জন্মদিনে পাবনায় শুটিংয়ে থাকার কথা ছিল। কিন্তু শুটিং বাতিল হওয়ায় পরিবার, ফ্যান ক্লাব, চ্যানেল’সহ আরও অন্যান্য অনেক অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করতে হচ্ছে তাকে।

অপু বিশ্বাসের প্রকৃত নাম অবন্তী বিশ্বাস। ১৯৮৯ সালের ১১ অক্টোবর বগুড়া জেলার সদর থানার কাটনারপাড়া এস কে লেনে তার জন্ম। তার বাবা উপেন্দ্রনাথ বিশ্বাস এবং মা শেফালী বিশ্বাস। তিন বোন ও এক ভাইয়ের মধ্যে সবার ছোট অপু। তার শৈশব ও কৈশোর কেটেছে বগুড়াতেই।

মায়ের সঙ্গে অপু বিশ্বাস

বাবা মায়ের অনুপ্রেরণায় স্কুল জীবন থেকেই নাচের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন অপু। বুলবুল ললিতকলা একাডেমি থেকে তিনি নাচ শিখেছেন। নাচ থেকেই তার অভিনয়ে যুক্ত হওয়া।

২০০৪ সালে প্রখ্যাত নির্মাতা আমজাদ হোসেনের ‘কাল সকালে’ সিনেমার মধ্য দিয়ে বড় পর্দায় অভিষেক ঘটে অপু বিশ্বাসের। তবে নায়িকা হিসেবে তার প্রথম আত্মপ্রকাশ ২০০৬ সালে এফ আই মানিকের ‘কোটি টাকার কাবিন’ সিনেমায়। এতে শাকিব খানের বিপরীতে অভিনয় করে দর্শক হৃদয়ে জায়গা করে নেন তিনি।

এরপর অপুকে আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। ঢাকাই সিনেমার শীর্ষ নায়ক শাকিব খানের সঙ্গে জুটি বেঁধে ‘পিতার আসন’, ‘চাচ্চু’, ‘দাদি মা’, ‘মিয়া বাড়ির চাকর’, ‘জন্ম তোমার জন্য’, ‘মায়ের হাতে বেহেশতের চাবি’, ‘লাভ ম্যারেজ’সহ অসংখ্য সুপারহিট সিনেমা উপহার দিয়েছেন ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় এই নায়িকা।

এছাড়া প্রয়াত নায়ক মান্নার সঙ্গে ‘পিতা মাতার আমানত’ ও ‘বাবা মায়ের সন্তান’, রিয়াজের সঙ্গে ‘বাজাও বিয়ের বাজনা’, রিয়াজ ও ফেরদৌসের সঙ্গে ‘শুভ বিবাহ’, আমিন খানের সঙ্গে ‘পৃথিবী টাকার গোলাম’, কাজী মারুফের সঙ্গে ‘বড় লোকের মেয়ে গরীবের ছেলে’ সিনেমায় দেখা গেছে অপুকে। ১৫ বছরের ক্যারিয়ারে তিনি প্রায় ৮০টির বেশি সিনেমায় অভিনয় করেছেন।

নিজের সর্বাধিক সিনেমার নায়ক শাকিব খানের সঙ্গে ২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল গোপনে ঘর বাঁধেন অপু। তাদের সংসারে জন্ম নেয় একমাত্র ছেলে আব্রাহাম খান জয়। ২০১৭ সালে একটি টেলিভিশনে সরাসরি সাক্ষাৎকারের মাধ্যমে অপু বিশ্বাস শাকিব খানের সঙ্গে তার বিয়ের কথা প্রকাশ করেন। তবে তাদের সংসার শেষ পর্যন্ত টেকেনি। ২০১৮ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি আনুষ্ঠানিকভাবে শাকিব-অপুর দাম্পত্য জীবনের ইতি ঘটে।


মতামত জানান :

 
 
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম