সংবাদ শিরোনাম

 

ময়মনসিংহে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটূক্তি করায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় দুই আইনজীবীকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

 

মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) বিকেলে জেলা ও দায়রা জজ আদালতে ওই মামলায় বিএনপিপন্থী ১১ আইনজীবী হাজির হন। এ সময় আদালতের বিচারক মো. হেলাল উদ্দিন দুজনকে কারাগারে পাঠিয়ে বাকি ৯ জনের জামিন বহাল রাখেন।

 

কারাগারে পাঠানো আইনজীবীরা হলেন- অ্যাডভোকেট উছমান গণি মল্লিক ও অ্যাডভোকেট তোফাজ্জল হোসেন ওরফে তোফাজ্জল।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন বিবাদী পক্ষে আইনজীবী অ্যাডভোকট আব্দুল গফুর। তিনি বলেন, আদালত বাকি ৯ আইনজীবীর জামিনের মেয়াদ বাড়িয়েছেন।

 

মামলায় যুক্তি তর্ক ও শুনানিতে বাদী পক্ষে অংশ নেন পাবলিক প্রসিকিউটর কবীর উদ্দিন ভূঁইয়া।

 

আদালত সূত্র জানায়, ২১ আগস্ট রাতে জেলা জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের অ্যাডভোকেট নুরুল হকের নেতৃত্বে একটি মিছিলে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে অশ্লীল, কুরুচিপূর্ণ, অবমানকর শ্লোগান ও বক্তব্য প্রদান এবং তা ফেসবুক লাইভে প্রচার করা হয়।

 

 

 

 

 

 

 

এ ঘটনায় ১৪ সেপ্টেম্বর রাতে জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট নুরুল হকসহ বিএনপিপন্থী ১১ আইনজীবীর বিরুদ্ধে কোতোয়ালি মডেল থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করেন বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ জেলা শাখার সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট মুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম মুহাম্মদ আজাদ।

 

 

১৯ সেপ্টেম্বর বিচারপতি মোস্তফা জামান ইসলাম ও বিচারপতি কে এম জাহিদ সারওয়ার কাজলের হাইকোর্ট বেঞ্চ থেকে আট সপ্তাহের আগাম জামিন নেন বিএনপিপন্থী ১১ আইনজীবী।

 

এদিকে, জামিনের মেয়াদ শেষ হওয়ায় ১৬ নভেম্বর ছিল হাজিরার দিন। ওই দিন তাদের ফের জামিন দেন আদালত।


মতামত জানান :

 
 
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম