সংবাদ শিরোনাম

 

স্টাফ রিপোর্টার, ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম : নির্বাচনে জয় পেতে মরিয়া হয়ে মাঠে নেমেছে দেশের বৃহৎ দুই রাজনৈতিক দল ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ ও বিএনপি সমর্থিত আইনজীবীরা। রবিবার সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত ৮৩৮ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। এ নির্বাচনকে ঘিরে সব ধরণের প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে।
জানা যায়, ১৮৮০ সালে ময়মনসিংহ জেলা আইনজীবী সমিতি প্রতিষ্ঠিত হয়। এরপর স্বাধীন বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠা লাভের পর ১৯৭২ সাল থেকে এ পর্যন্ত সমিতির কার্যকরী পরিষদের ৪৪টি নির্বাচন শেষে ৪৫তম নির্বাচন শুরু হয়েছে। এ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির নেতৃত্বে জোটবদ্ধ দলগুলোর অংশগ্রহনে ১৫টি পদের বিপরীতে মোট ৩০ জন প্রার্থী ভোট যুদ্ধে প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন। সর্বশেষ বিগত নির্বাচনে জয় পায় বিএনপিপন্থী আইনজীবীদের প্যানেল। যদিও ১৫টি পদের মধ্যে বেশ কয়েকটি পদে আওয়ামী লীগ জয় পেয়েছিলো।
সমিতি সূত্র জানায়, সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের ব্যনারে জালাল উদ্দিন খান ও বদর উদ্দিন আহমেদ প্যানেলে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগপন্থী ১৫জন প্রার্থী ভোটযুদ্ধে লড়াই করছেন। অন্যান্য পদে প্রার্থীরা হলেন-সভাপতি মি.জালাল উদ্দিন খান, সহ-সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা আব্দুল ওয়াদুদ ভুইয়া, হযরত আলী, সাধারণ সম্পাদক বদর উদ্দিন আহম্মেদ, সহ-সম্পাদক হারুনূর রশিদ, বিজন কুমার পাল, সফিকুল ইসলাম, অডিটর বিপুল রায়, সদস্য কামরুল ইসলাম, মেহেদী হাসান আকন্দ, আ. আল মামুন, মুহাম্মদ মাহবুব আজাদ খান, মোহাম্মদ মাহমুদুল হাসান, তাসলিমা আবিদ পাপিয়া, আব্দুল আলিম।
অন্যদিকে, সমন্বিত আইনজীবী ঐক্য পরিষদের ব্যনারে শ্রী বাঁধন কুমার গোস্বামী ও মীর মিজানুর রহমান প্যানেলে বিএনপিপন্থী ১৫জন আইনজীবী প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন। অন্যরা হলেন- সভাপতি বাঁধন কুমার গোস্বামী, সহ-সভাপতি মো. আকরাম হোসেন, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান কাজী শাহজাহান, সাধারণ সম্পাদক মীর মিজানুর রহমান, সহ-সম্পাদক আবুল বাসার মাসুদ, আব্দুল মান্নান, মোশাররফ হোসেন শওকত, অডিটর আনিছুজ্জামান আনিছ, সদস্য নূর উদ্দিন নয়ন, জসিম উদ্দিন, জহিরুল ইসলাম নিঝুম, রফিক উদ্দিন, কামরুল হাসান কিরণ, হারুন অর রশিদ, রোমেন হোসাঈন।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম