সংবাদ শিরোনাম

 

নিজস্ব প্রতিবেদক : হত্যা মামলায় এক যুগেরও বেশি সময় ধরে কিশোরগঞ্জ কারাগারে বন্দী দুই আসামি শফিকুল ইসলাম স্বপন ও সাবেত আলীর মানসিক স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য কিশোরগঞ্জ জেলা কারা কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। আদেশে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তাদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করতে বলা হয়েছে। এছাড়া আদাশে হাসপাতালে নেওয়ার দিন থেকে ১৫ দিনের মধ্যে পরীক্ষাসংক্রান্ত প্রতিবেদন সংশ্লিষ্ট আদালতে দাখিল করতে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষকে বলা হয়েছে।

বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি কৃষ্ণা দেবনাথের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ রবিবার এই আদেশ দেন।

আইনজীবীরা জানান, বাবাকে হত্যার অভিযোগে করা মামলায় ২০০১ সাল থেকে শফিকুল ইসলাম স্বপন কারাগারে আছেন। এছাড়া স্ত্রী ও মা হত্যার অভিযোগে ২০০৩ সালের ২৯ জুন থেকে কারাগারে আছেন সাবেত আলী। এরা দুইজনই মানসিক প্রতিবন্ধী। তাদের মামলা দুটি সাক্ষ্যগ্রহণ পর্যায়ে রয়েছে। তাদের নিয়ে বেসরকারি একটি টেলিভিশনে খবর প্রচারিত হলে সুপ্রিম কোর্ট লিগ্যাল এইডের পক্ষে বিষয়টি আদালতের নজরে আনেন আইনজীবী কুমার দেবুল দে।

চলতি মাসে আদালত রুল দেন এবং হাইকোর্ট কিশোরগঞ্জের কারা কর্তৃপক্ষকে তাদের আদালতে হাজির করার নির্দেশ দেন। সে হিসেবে আজ তাদের আদালতে হাজির করা হয়।

আইনজীবী কুমার দেবুল দে বলেন, হাসপাতাল থেকে দেয়া প্রতিবেদনে যদি দেখা যায় তারা মানসিক প্রতিবন্ধী তাহলে আইন অনুসারে পদক্ষেপ নিতে বলেছেন আদালত। আর যদি মানসিক প্রতিবন্ধী না হন তাহলে সাবিত আলীর মামলাটি ছয় মাসের মধ্যে নিষ্পত্তির নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এছাড়া শফিকুলের মামলাটি দুই মাসের মধ্যে নিষ্পত্তির নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।


মতামত জানান :

 
 
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম