সংবাদ শিরোনাম

 

নিজস্ব প্রতিবেদক : সরকারি ব‌্যবস্থাপনায় হজে যাওয়ার খরচ গতবারের তুলনায় ১৪ থেকে ২১ হাজার টাকা বাড়ছে এবার।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে ‘জাতীয় হজ ও ওমরাহ নীতি-২০১৭’ এবং ‘হজ প্যাকেজ-২০১৭’ এর খসড়ায় অনুমোদন দেওয়া হয়।

সভা শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সাংবাদিকদের সামনে এবারের হজ প‌্যাকেজের তথ‌্য তুলে ধরেন।

সরকারি ব্যবস্থাপনায় প্যাকেজ- ১ এর আওতায় (কোরবানি ছাড়া) হজে যেতে এবার ৩ লাখ ৮১ হাজার ৫০৮ টাকা এবং প্যাকেজ-২ (কোরবানিসহ) এর আওতায় ৩ লাখ ১৯ হাজার ৩৫৫ টাকা খরচ হবে।

গত বছর প্যাকেজ-১ এ ৩ লাখ ৬০ হাজার ২৮ টাকা এবং প্যাকেজ-২ এ ৩ লাখ ৪ হাজার ৯০৩ টাকা নির্ধারিত ছিল।

বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় এবার সর্বনিম্ন ১ লাখ ৫৬ হাজার ৫৩৭ টাকা খরচ নির্ধারণ করে দিয়েছে সরকার; গত বছর যা ছিল ১ লাখ ৫৫ হাজার ৪৪১ টাকা।

এই হিসেবে বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় এবার হজে যাওয়ার মৌলিক খরচ বেড়েছে এক হাজার ৯৬ টাকা। এই ‘মৌলিক’ খরচের সঙ্গে সৌদি আরবে বাড়িভাড়া, খাওয়া-দাওয়া, কোরবানিসহ অন্যান্য খরচ হজ এজেন্সিগুলো যোগ করবে।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, সুবিধার ধরন অনুযায়ী বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় হজে যেতে টাকার অংকে হেরফের হবে।

খরচ বাড়ার বিষয়ে এক প্রশ্নে শফিউল আলম বলেন, “অনেকগুলো আইটেমের মধ্যে খরচ বেড়ে গেছে। সৌদি রিয়ালের দাম বেড়েছে, ডলারের দাম বেড়েছে, বাড়ি ভাড়াও একটু বেড়েছে; সব মিলিয়েই খরচ কিছুটা বেড়েছে।”

এ বছর নিট বিমান ভাড়া দেড় হাজার ডলার নির্ধারণ করা হয়েছে জানিয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, এবার সব হজযাত্রীকে বাধ্যতামূলকভাবে এমআরপি পাসপোর্ট নিতে হবে।

“প্রত্যেক হজ এজেন্সিকে কমপক্ষে ১৫০ জন এবং সর্বোচ্চ ৩০০ জন হজযাত্রী পাঠানো অনুমতি দেওয়া হবে। কোরবানির জন্য ৫০০ রিয়াল সৌদি একটি ব্যাংকে জমা দিতে হবে, তারাই কোরবানি করে দেবে। আর বাড়ি ভাড়া, খাওয়াসহ অন্যান্য খরচ ই-পেমেন্টের মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে।”

এবার সরকারি ব্যবস্থাপনায় ১০ হাজার এবং বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ১ লাখ ১৭ হাজার ১৯৮ জন হজ করার সুযোগ পাবেন। গতবছর সরকারিভাবে ১০ হাজার এবং বেসরকারিভাবে ৯১ হাজার ৭৫৮ জন হজে গিয়েছিলেন।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম