সংবাদ শিরোনাম

 

ফুলবাড়ীয়া প্রতিনিধি, ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম : ময়মনসিংহের ফুলবাড়িয়ায় নিষিদ্ধ ঘোষিত ৫০ কেজি পিরানহা মাছ জব্দ করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। এসব মাছ সংরক্ষণ ও বিক্রির দায়ে তিন মাছ ব্যবসায়ীকে ৫’শ টাকা করে এক হাজার ৫’শ টাকা জরিমানা করা হয়।
বুধবার (০৮ ফেব্রুয়ারি) বিকেল ৩ টার দিকে ফুলবাড়িয়া মাছ বাজারে এ অভিযান পরিচালনা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও স্থানীয় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) লিরা তরফদার।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) লিরা তরফদার জানান, সরকারিভাবে নিষিদ্ধ ঘোষিত প্রায় ৫০ কেজি পিরানহা মাছ জব্দ করা হয়। এসব মাছ বিক্রি ও সংরক্ষণের দায়ে মৎস্য সংরক্ষণ আইনে তাদের জরিমানা করা হয়। জব্দকৃত মাছের মূল্য ১০ থেকে ১৫ হাজার টাকা হবে বলে জানান তিনি। পরে সব মাছ মাটিতে পুতে ধ্বংস করা হয়।
পিরানহা নামের মাছটি মূলত আমাজন নদীর একটি ভয়ঙ্কর মাছ। মানুষখেকো হিসেবেও অনেকে এই মাছটিকে চেনে। আমাদের দেশে অনেকের শৌখিন অ্যাকুরিয়ামে এ মাছটির দেখা মেলে।
বেশ অনেক বছর ধরে ময়মনসিংহ জেলাসহ বিভিন্ন অঞ্চলে এ পিরানহা মাছটির চাষ হয়ে আসছে এবং বাজারে বিক্রি হয়ে আসছে। চান্দা মাছ কিংবা সামুদ্রিক চান্দা হিসেবে এটিকে চালানো হচ্ছে। মাছটি মাংসাশি হওয়ায় এর স্বাদও বেশ ভালো।
এ কারণেই মাছটিকে সাধারণ মানুষ বাজারে গ্রহণও করেছিল। কিন্তু এ মাছ কোনো ক্রমে খাল-বিল, নদ-নদীতে চলে গেলে তা দেশিয় প্রজাতীর মাছের জন্য ভয়ঙ্কর অবস্থার সৃষ্টি করতে পারে। এ জন্য সরকার এ মাছটিকে নিষিদ্ধ করেছে।


মতামত জানান :

 
 
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম