সংবাদ শিরোনাম

 

নিজস্ব প্রতিবেদক : পুলিশ সুপার বাবুল আক্তারের স্ত্রী মাহমুদা আক্তার মিতু হত্যার রহস্য উন্মোচনের কাছাকাছি বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। এই মামলার চূড়ান্ত প্রতিবেদন যেকোনো সময় দেয়া হবে বলেও জানান মন্ত্রী।

বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানীর উত্তরায় এপিবিএন হেডকোয়ার্টারে সংস্থাটির কল্যাণ সভা শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

গত বছর ৫ জুন সকালে চট্টগ্রামে শহরে প্রকাশ্যে খুন হন বাবুলের স্ত্রী মিতু। এর কিছুদিন আগে এসপি পদে পদোন্নতি পেয়ে চট্টগ্রামের গোয়েন্দা পুলিশের দায়িত্ব ছেড়ে ঢাকায় এসেছিলেন বাবুল। প্রথমে এই হত্যাকাণ্ডের জন্য জঙ্গিদের সন্দেহ করা হলেও কয়েকজনকে গ্রেপ্তারের পর সব বিষয় বিবেচনায় নিয়ে তদন্তের কথা জানায় পুলিশ।

কয়েক সপ্তাহ পর এক রাতে ঢাকার বনশ্রীর শ্বশুর বাড়ি থেকে তুলে গোয়েন্দা পুলিশ কার্যালয়ে এনে বাবুলকে ১৪ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদের পর নানা গুঞ্জন ছড়াতে থাকে। তখন পুলিশের পক্ষ থেকে এ বিষয়ে কিছু বলা না হলেও কয়েক মাস পর বাবুলের পদত্যাগপত্র গ্রহণের কথা জানান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। এরপর থেকে এই হত্যাকাণ্ড নিয়ে রহস্য আরও বাড়তে থাকে। সম্প্রতি কোনো কোনো গণমাধ্যমে বাবুল আক্তারের শ্বশুর তার জামাইকে সন্দেহ করছেন বলে খবর বের হয়। এ প্রসঙ্গে সাংবাদিকরা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে জানতে চান। জবাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘এ ব্যাপারে তদন্ত চলছে। আশা করছি দ্রুত এ ঘটনার রহস্য উন্মোচিত হবে।’

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে মেয়রের গুলিতে এক সাংবাদিক নিহত হওয়া প্রসঙ্গে বৈধ অস্ত্রের অবৈধ ব্যবহার নিয়ে সাংবাদিকরা প্রশ্ন করেন। এর জবাবে মন্ত্রী বলেন, ‘এরকম ঘটনা প্রায়ই ঘটছে- এমনটি নয়। এসব বিচ্ছিন্ন ঘটনা।’

সাংবাদিক দম্পতি সাগর-রুনি হত্যা নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘হাইকোর্টের নির্দেশে এটি এখন র‌্যাবের তদন্তাধীন। তারা তদন্ত করছে। এর আপডেট জানা নেই।’

অনুষ্ঠানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আমর্ড পুলিশ ব্যাটালিয়ন ভিভিআইপি ও সরকারি স্থাপনাগুলোর নিরাপত্তাব্যবস্থাসহ অনেক কাজে অবদান রাখছে।’ তাদের সব ধরনের যৌক্তিক দাবি বিবেচনা করা হবে বলেও জানান মন্ত্রী।

এপিবিএন কর্মকর্তাদের সন্তানদের জন্য পৃথক স্কুল-কলেজ নির্মাণের আশ্বাস দেন মন্ত্রী। এছাড়া বিশেষ ভাতা ও পদায়নের ব্যবস্থাও করা হবে বলে জানান তিনি।

মন্ত্রী বলেন, একটি নীতিমালা তৈরি করে এপিবিএন সদস্যদের বিদেশি মিশনেও পাঠানো হবে।

অনুষ্ঠানে অতিরিক্ত আইজিপি (এপিবিএন) সিদ্দিকুর রহমান সভাপতিত্ব করেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত আইজিপি মুখলেছুর রহমান।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম