সংবাদ শিরোনাম

 

নিজস্ব প্রতিবেদক : প্রথমবারের মতো ১৮টি উপজেলায় বিভিন্ন পদে দলীয় প্রতীকে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে আগামীকাল সোমবার। বিদায়ী নির্বাচন কমিশন তফসিল ঘোষণা করলেও নতুন কমিশনের অধীনে অনুষ্ঠিত হবে এই ভোট।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নুরুল হুদার প্রতি অনাস্থা জানালেও তার অধীনে এই নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে বিএনপি। তবে দলটি এই ভোটকে নতুন নির্বাচন কমিশনের জন্য ‘টেস্ট কেস’ হিসেবে দেখছে।

আগামীকাল সিলেটের ওসমানী নগর, খাগড়াছড়ির গুইমারা ও সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলায় তিন পদে ভোটগ্রহণ করা হবে। শুধু চেয়ারম্যান পদে ভো হবে কুড়িগ্রাম সদর, বরিশালের বানারীপাড়া, গৌরনদী, ঝালকাঠির কাঁঠালিয়া, পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী, কুমিল্লার আদর্শ সদর, পাবনার সুজানগর, কিশোরগঞ্জের হোসেনপুরে। ভাইস চেয়ারম্যান পদে ভোট হবে কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম, নাটোরের বড়াইগ্রাম, নীলফামারীর জলঢাকা, সাতক্ষীরার কলারোয়া ও বাগেরহাটের মোড়েলগঞ্জে। আর সংরক্ষিত নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে ভোট হবে পাবনার ঈশ্বরদী এবং কুমিল্লার সদর দক্ষিণে।

এই নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীদের পাশাপাশি স্বতন্ত্র প্রার্থী হওয়ারও সুযোগ ছিল। সেক্ষেত্রে প্রার্থীদের ২৫০ জন ভোটারের সমর্থনসূচক তালিকা জমা দিতে হয়েছে। অবশ্য যারা এর আগে চেয়ারম্যান বা ভাইস চেয়ারম্যান ছিলেন তাদের স্বতন্ত্র প্রার্থী হওয়ার জন্য সমর্থকদের তালিকা দিতে হয়নি।

ইউনিয়ন, পৌরসভা, জেলা পরিষদ ও সিটি করপোরেশন নির্বাচন ইতোমধ্যে দলীয় প্রতীকে অনুষ্ঠিত হলেও উপজেলা নির্বাচন এবারই প্রথমবারের মতো দলীয় প্রতীকে হচ্ছে। এর আগে রাজনৈতিক দলগুলো প্রার্থীদের সমর্থন দিলেও এবার সরাসরি মনোনয়ন দিয়েছে। বরাবরের মতো এবারও ১৮ উপজেলার বিভিন্ন পদে নৌকা ও ধানের শীষের মধ্যে মূল প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে বলে জানা গেছে।

মাসব্যাপী রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে সংলাপ শেষে সার্চ কমিটির সুপারিশের ভিত্তিতে রাষ্ট্রপতি গত ৬ ফেব্রুয়ারি গঠন করেন নতুন নির্বাচন কমিশন। সাবেক সচিব কে এম নুরুল হুদার নেতৃত্বাধীন কমিশনের অন্য সদস্যদের নিয়ে কোনো আপত্তি না থাকলেও সিইসিকে নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে রাজপথের প্রধান বিরোধী দল বিএনপি। দলটির অভিযোগ, কে এম নুরুল হুদা জনতার মঞ্চের সংগঠক ছিলেন। তৎকালীন বিএনপি সরকারকে উৎখাতে তার ভূমিকা ছিল। তবে সিইসি শুরু থেকেই এই অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন। তিনি জানিয়েছেন, কথায় নয়, কাজের দ্বারা নিরপেক্ষতার প্রমাণ দিতে চান।

দুয়েকটি উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হলেও নতুন নির্বাচন কমিশনের অধীনে বড় আঙ্গিকে এটাই প্রথম নির্বাচন। এজন্য নতুন কমিশনের অধীনে এই নির্বাচনকে গুরুত্বের সঙ্গে দেখছে সবাই।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম