সংবাদ শিরোনাম

 

ভৈরব প্রতিনিধি  : ‘নারী-পুরুষ সমতায় উন্নয়নের যাত্রা, বদলে যাবে বিশ্ব, কর্মে নতুন মাত্রা’ এই স্লোগানকে প্রতিপাদ্য করে আলোচনা ও শোভাযাত্রার মাধ্যমে ভৈরবে উদযাপিত হয়েছে আন্তর্জাতিক নারী দিবস। উপজেলা প্রশাসনের সহায়তায় উপজেলা মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর ওইসব কর্মসূচীর আয়োজন করে।
উপজেলা পর্যায়ের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী, স্থানীয় বিভিন্ন উন্নয়নমূলক বেসরকারী সংস্থাসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা ওইসব কর্মসূচীতে অংশ নেন।
দিবসটি উদযাপনে বেলা ১১টার দিকে উপজেলা কমপ্লেক্স চত্বরের কড়ইতলা থেকে একটি শোভাযাত্রা বের হয়ে শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে ফিরে আসে।
শোভাযাত্রা শেষে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে নির্বাহী কর্মকর্তা দিলরুবা আহমদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন পৌর মেয়র ও মুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট ফখরুল আলম আক্কাছ।
তিনি বলেন, দেশের জনসংখ্যার অর্ধেক নারীকে মূল ধারার বাইরে রেখে দেশের উন্নয়ন সম্ভব নয়। পারিবারিক, সামাজিক ও রাষ্ট্রীয় পর্যায়ে উন্নতি লাভ করতে হলে নারীর সম্পৃক্ততা অতিগুরুত্বপূর্ণ। শিক্ষা, অর্থনীতিসহ সকল উন্নয়নে নারীর ভূমিকা পুরুষের চেয়ে কোনো অংশে কম নয়।
সভাপতির বক্তব্যে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা দিলরুবা আহমেদ বলেন, নারী হিসেবে নারীরা বিশেষ সুবিধা নয়, মানুষ হিসেবে সঠিক মর্যাদা আর অধিকার টুকু পেলেই এগিয়ে যেতে পারবে।
আলোচনা সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা রেহেনা পারভীন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় মহিলা সংস্থার সভাপতি অধ্যাপিকা উলফত আরা জাহান, পরিবরার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মীর সাজিদুর রহমান, কৃষি কর্মকর্তা মো. জালাল উদ্দিন প্রধান, মৎস্য কর্মকর্তা রিপন কুমার পাল, প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. কামরুল ইসলাম।
অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা জলি বদন তৈয়বা, উপজেলা একাডেমিক সুপারভাইজার স্বপ্না বেগম, সমবায় কর্মকর্তা সন্ধ্যা রানী, অধ্যাপক মো. ফজলুল হক, গজারিয়া ইউপি চেয়ারম্যান গোলাম সারোয়ার গোলাপ প্রমূখ।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম