সংবাদ শিরোনাম

 

নিজস্ব প্রতিবেদক : ১৪ দেশের পুলিশপ্রধানদের নিয়ে তিন দিনের চিফ অব পুলিশ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হচ্ছে ঢাকায়। জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসসহ আন্তঃদেশীয় অপরাধ দমনে আগামী ১২-১৪ মার্চ ঢাকায় এই সম্মেলন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ইন্টারপোল ও বাংলাদেশ পুলিশের যৌথ উদ্যোগে হবে এই সম্মেলন।

বাংলাদেশ পুলিশের মহাপরিদর্শক একেএম শহীদুল হক বৃহস্পতিবার দুপুরে পুলিশ সদর দপ্তরে এক সংবাদ সম্মেলনে জানান এসব তথ্য।

আইজিপি জানান, সম্মেলনে আফগানিস্তান, অস্ট্রেলিয়া, ভুটান, ব্রুনাই, চীন, ভারত, ইন্দোনেশিয়া, মালদ্বীপ, মালয়েশিয়া, মিয়ানমার, নেপাল, দক্ষিণ কোরিয়া, শ্রীলঙ্কা, ভিয়েতনাম এই ১৪টি দেশের পুলিশ ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা অংশগ্রহণ করবেন।  এছাড়াও ইন্টারপোল, ফেসবুক, যুক্তরাষ্ট্রের আইজিসিআই, এফবিআই, আসিয়ানপোল এসব সংস্থার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত থাকবেন।

পুলিশপ্রধান বলেন, সম্মেলনে আফগানিস্তানের সিনিয়র ডেপুটি মিনিস্টার ফর সিকিউরিটি আবদুর রহমান, মালোয়শিয়ার ইন্সপেক্টর জেনারেল অব পুলিশ খালিদ আবু বকর, মিয়ানমারের পুলিশের বিগ্রেডিয়ার জেনারেল, দক্ষিণ কোরিয়ার পুলিশের সুপাররিটেন্টেড, শ্রীলঙ্কার ইন্সেপেক্টর জেনারেল অফ পুলিশ, ইন্টোরপোলের মহাসচিব, ফেসবুকের ট্রাস্ট্রি অ্যান্ড সেইফটি ম্যানেজার, আসিয়ানপোলের নির্বাহী পরিচালকসহ ৫৮ জন বিদেশি অতিথি সম্মেলনে যোগ দেবেন।

আইজিপি জানান, স্বরাষ্টমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল প্রধান অতিথি হিসেবে ১২ মার্চ রবিবার সোনারগাঁও হোটেলে সম্মেলন উদ্বোধন করবেন। ১৪ মার্চ মঙ্গলবার সম্মেলন শেষ হবে।  তিনি জানান, সম্মেলনে ১৪টি কর্মঅধিবেশন অনুষ্ঠিত হবে। বাংলাদেশ এবং সম্মেলনে অংশগ্রহণকারী বিভিন্ন দেশের প্রতিনিধিরা বিষয়ভিত্তিক বক্তব্য উপস্থাপন করবেন। জঙ্গিবাদ দমন, মানবপাচার, অর্থনৈতিক অপরাধ এবং সন্ত্রাসী অর্থায়ন, মাদকদ্রব্য পাচার রোধ, অবৈধ অস্ত্র চোরাচালান প্রতিরোধ, গোয়েন্দা তথ্য আদান প্রদান, সাইবার অপরাধ নিয়ন্ত্রণ ইত্যাদি বিষয় আলোচনা স্থান পাবে। সম্মেলন শেষে জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাস দমনসহ আন্তঃদেশীয় প্রতিরোধের কর্মপন্থা নির্ধারণ করে যৌথ স্বাক্ষর হবে।

সম্মেলন চলাকালে  ইন্টারপোল মহাসচিব, বিভিন্ন দেশের পুলিশপ্রধানদের সঙ্গে পৃথক বৈঠক করবেন আইজিপি। বৈঠককালে তাদের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতিসহ পারস্পারিক স্বার্থসংশ্লিষ্ট বিষয় আলোচনা করা হবে।

আইজিপি বলেন, সম্মেলনের বিভিন্ন কর্মঅধিবেশনে উপস্থাপিত বিভিন্ন আলোচনা থেকে আন্তঃদেশীয় অপরাধ এবং সন্ত্রাস দমনের অভিজ্ঞতা ও তথ্য বিনিময়, আন্তঃদেশীয় অপরাধ এবং সন্ত্রাস দমনে একটি সম্মনিত কৌশল প্রণয়ন, এ অঞ্চলের পুলিশপ্রধানদের মধ্যে সহযোগিতা বৃদ্ধির লক্ষে একটি ফ্লাটফর্ম গঠন এবং দক্ষিণ এশিয় অঞ্চলের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর মধ্যে পেশাগত ও কৌশলগত নেটওয়ার্ক গড়ে তোলা এবং দ্বিপক্ষীয় ও আঞ্চলিক সহযোগিতা নিশ্চিতকরণ বিষয়গুলো উঠে আসবে বলে আশা করছি।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম