সংবাদ শিরোনাম

 

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক : নতুন কলেজকে অধিভুক্ত না করা এবং সরকারি-বেসরকারি ক্ষেত্রে চাকরির ক্ষেত্র বাড়ানোর দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল করেছেন বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) কৃষি অর্থনীতি ও গ্রামীণ সমাজবিজ্ঞান অনুষদের শিক্ষার্থীরা। সোমবার বেলা ১১টার দিকে ক্লাস বর্জন ও অনুষদের অ্যাকাডেমিক ভবনে তালা লাগিয়ে প্রশাসনিক ভবনের সামনে বিক্ষোভ করেন শিক্ষার্থীরা।
সূত্রে জানা গেছে, নেত্রকোনায় নবগঠিত কৃষি অর্থনীতি কলেজকে অধিভুক্ত করে নতুন করে কৃষি অর্থনীতি ও গ্রামীণ সমাজবিজ্ঞান নামে স্নাতক ডিগ্রি চালু করার প্রস্তাবনা পাশ করতে যাচ্ছে বাকৃবি অ্যাকাডেমিক কাউন্সিল।
এরই প্রতিবাদে অনুষদের প্রধান ফটকে তালা দেন আন্দোলনকারীরা। পরে তারা একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করেন। মিছিলটি অনুষদীয় করিডোর প্রদক্ষিণ করে প্রশাসন ভবনের সম্মুখে এসে শেষ হয়। পরে সেখানে বিভিন্ন স্লোগান দিতে থাকেন তারা। এ সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর প্রফেসর ড. মো. আতিকুর রহমান খোকন এসে পরিস্থিতি শান্ত করার চেষ্টা করেন।
পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রবিষয়ক উপদেষ্টা প্রফেসর ড. সচ্চিদানন্দ দাস চৌধুরী ও কৃষি অর্থনীতি ও গ্রামীণ সমাজবিজ্ঞান অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. মো. আবদুল কদ্দুছের আশ্বাসের ভিত্তিতে পরিস্থিতি শান্ত হয়।
এ সময় ড. মো. আবদুল কদ্দুছ বলেন, আমরা ছাত্রদের নিয়মতান্ত্রিক আন্দোলনে পাশে আছি। আমরা তাদের দাবি পূরণে সর্বোচ্চ চেষ্টা করব।
উল্লেখ্য, বিভিন্ন চাকরির ক্ষেত্রে কৃষি অর্থনীতি স্নাতকদের প্রতিবন্ধকতা নিরসন ও বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিসে (বিসিএস), কৃষি বিপণন অধিদফতরের অধীনে প্রত্যেক উপজেলায় সহকারী পরিচালক পদ সৃষ্টিসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে চাকরির সুযোগ সৃষ্টির লক্ষ্যে বিগত দুই মাস থেকে আন্দোলন করে আসছে কৃষি অর্থনীতি ও গ্রামীণ সমাজবিজ্ঞান অনুষদের শিক্ষার্থীরা।


মতামত জানান :

 
 
আরও পড়ুন
 
কপিরাইট © ময়মনসিংহ প্রতিদিন ডটকম - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | উন্নয়নে হোস্টপিও.কম